চট্টগ্রাম, , বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০

চট্টগ্রামে কি কোন ‘পুরুষ’ শিল্পপতি নেই : ম্যাজিস্ট্রেট মঞ্জুরুল হক

প্রকাশ: ২০১৯-০৮-০৮ ১৪:৩২:৩৯ || আপডেট: ২০১৯-০৮-০৮ ১৪:৩২:৩৯

এ.এস.রানা: বিআরটিএ’র ম্যাজিস্ট্রেটদের পরিচালিত একটি পেইজে তার ব্যাক্তিগত মতামত দিয়ে গণপরিবহন খাতে শৃঙ্খলা আনতে সুপারিশও করেন।

তিনি বলেন, দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম নগরীর গণ পরিবহন ব্যবস্থা বিশ্বমানের করতে এগিয়ে আসতে হবে শিল্পপতিদের। আধুনিক বাস নামাতে শিল্পপতিদের এগিয়ে আসার অনুরোধ জানিয়ে ফেসবুকে উল্লেখ করে বলা হয়, ব্যয়বহুল বাস নামাতে হলে বড় বিনিয়োগের দরকার। পোস্টে নগরীতে চলাচলকারী বাসগুলোকে ‘মুড়ির টিন’ হিসেবে তিনি আখ্যায়িত করেছেন।

আলোচ্য পোস্টটি সম্পর্কে জানতে চাইলে বিআরটিএ, চট্টগ্রামে দায়িত্বরত নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এস.এম মনজুরুল হক বলেন, ‘বন্দরনগরী হিসেবে খ্যত এ শহরে গণপরিবহন বলতে আসলে কিছুই নেই। যেগুলো চলছে তারমধ্যে কিছু চলাচলের জন্য উপযোগী হলেও বাকিগুলোর অবস্থা খুবই খারাপ। বন্দরনগরী চট্টগ্রামের এই পরিবহণ অবস্থা দেখে খুব কষ্ট হয়। দেশ উন্নত হচ্ছে। যে নগরীর হাত ধরে এগিয়ে যাচ্ছে পুরো দেশ সে নগরবাসীর একমাত্র কষ্ট হচ্ছে গণপরিবহন। নগরবাসীকে গণপরিবহনের এ দুর্ভোগের হাত থেকে বাঁচাতে পারেন একমাত্র শিল্পপতিরা। যারা চাইলে সড়কে নামাতে পারেন উন্নত বিশ্বের আদলে আধুনিক বাস।’

এই ব্যাপারে কেউ এগিয়ে আসলে বিআরটিএ সার্বিক সহযোগিতা করবে জানিয়ে তিনি আরো বলেন, ‘পরিবহন ব্যবস্থায় অনেকেই পরিবর্তন আনতে চেয়েছেন। কিন্তু সিন্ডিকেটের কারণে তারা হয়তো এই ব্যবসায় আসতে পারছেন না। আমি চট্টগ্রামে যারা সাহসী শিল্পপতি আছেন তাদের কাছে আকুল আবেদন করছি, চট্টগ্রাম শহরকে সুন্দর করতে আপনারা এগিয়ে আসুন। যদি সিন্ডিকেট দ্ধারা কোন হয়রানির শিকার হন তাহলে আপনারা সরকারের সহযোগিতা নিন। এছাড়া যে কোন সহযোগিতায় আপনাদের পাশে থাকবে চট্টগ্রাম- বিআরটিএ, জানান তিনি।’

ট্যাগ :