চট্টগ্রাম, , বৃহস্পতিবার, ১৩ মে ২০২১

‘চট্টলবীর’ ফিরছেন

প্রকাশ: ২০১৭-১২-০৬ ১৪:০৪:৫২ || আপডেট: ২০১৭-১২-০৬ ১৪:০৭:৩১

সিটিজি নিউজ ডেস্ক:

এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী

চট্টগ্রাম: নেতাকর্মীদের কাছে চট্টলবীর খ্যাত বর্ষীয়ান রাজনীতিক এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী সুস্থ হয়ে উঠেছেন।  আগামী সপ্তাহে চট্টগ্রামে ফিরিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মহিউদ্দিনের পরিবার।  আকস্মিক কোন শারীরিক সংকট দেখা না দিলে আগামী শনিবার অথবা রোববার তাকে চট্টগ্রামের বাসায় নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন মহিউদ্দিনের ছেলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

‘আমার আব্বা পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠেছেন। ডায়ালাইসিস ছাড়া এখন আর কোন টৃটমেন্ট নেই। এখন হাসপাতালে রাখলেই বরং ইনফেকশন হতে পারে বলছেন ডাক্তাররা। সেজন্য উনাকে চট্টগ্রামের বাসায় নিয়ে যেতে চাচ্ছি। শনিবার অথবা রোববার নিয়ে যাব। শুক্রবার ডায়ালাইসিসের পর ডাক্তারের সঙ্গে পরামর্শ করে দিন ঠিক করব। ’ বলেন নওফেল নিজ বাসায় মৃদু হার্ট অ্যাটাক এবং কিডনিজনিত রোগে আক্রান্ত হওয়ার পর মহিউদ্দিনকে ১১ নভেম্বর রাত ১১টার দিকে চট্টগ্রাম নগরীর মেহেদিবাগে ম্যাক্স হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তাকে আইসিইউতে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরদিন দুপুরে মহিউদ্দিনকে হেলিকপ্টারে ঢাকায় নিয়ে স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

১৬ নভেম্বর অসুস্থ মহিউদ্দিনকে সিঙ্গাপুরে নেওয়া হয়।  সিঙ্গাপুরের অ্যাপোলো গ্লিনিগ্যালস হসপিটালে মহিউদ্দিনের এনজিওগ্রাম এবং হার্টের দুটি ব্লকে রিং বসানো হয়। সিঙ্গাপুরে ১১ দিনের চিকিৎসা শেষে ২৬ নভেম্বর রাতে মহিউদ্দিনকে নিয়ে দেশে আসেন স্বজনরা।  এরপর তাকে আবারো স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী টানা তিনবার নির্বাচিত হয়ে ১৭ বছর মেয়রের দায়িত্ব পালন করেন।  ২০১০ সালে সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে পরাজিত হন।এরপরও চট্টগ্রামের রাজনীতির মাঠে এখনো সমান জনপ্রিয় মহিউদ্দিন। আওয়ামী লীগের রাজনীতির বড় অংশের নিয়ন্ত্রক মহিউদ্দিনকেই ভাবা হয়।  চট্টগ্রামের স্বার্থসংশ্লিষ্ট ইস্যুতে আন্দোলনে এখনো মহিউদ্দিনই নিয়ামক, এমনটাই মনে করেন বন্দরনগরীর মানুষ।  দলমত নির্বিশেষে সকলের শ্রদ্ধার মানুষ মহিউদ্দিন।

ট্যাগ :